দুই বার গিনেস বুকে নাম লেখালেন ফয়সাল। বাংলাদেশী বলে সে কি ভাইরাল হবে না?

ফ্রিস্টাইল আর্মরোলিংয়ে দ্বিতীয়বারের মতো গিনেস বুক অব ওয়ার্ল্ড রেকর্ড করলেন মাগুরার মাহমুদুল হাসান ফয়সাল। বাস্কেট বল রোলিংয়ের কারণে তিনি এ স্বীকৃতি পেলেন। গিনেস কমিটির কাছ থেকে চিঠি পাওয়ার পর আজ (সোমবার) মাগুরায় স্থানীয় সাংবাদিকদের কাছে স্বীকৃতির কথা জানান তিনি। এর আগে ২০১৮ সালের ১১ নভেম্বর প্রথমবারের মতো গিনেস বুক অব ওয়ার্ল্ড রেকর্ডসে স্থান করে নিয়েছিলেন ফয়সাল। সেবার তিনি ফ্রিস্টাইল ফুটবল আর্মরোলের কারণে স্বীকৃতি পান।

বাস্কেট বলে ১ মিনিটে ১৪৪ বার আর্মরোলিংয়ের মাধ্যমে নতুন রেকর্ডটি করেছেন। এর আগে এই রেকর্ডটি ছিল টম নামের এক ব্রিটিশের দখলে। টম ১ মিনিটে ১২১ বার বল ঘুরাতে পারতেন। সাক্ষাৎকারে সাংবাদিকদের ফয়সাল জানান, অন্যরকম কিছু একটা করে দেখানোর তাগিদ দিত তার মন। সেই অদম্য ইচ্ছা থেকেই লোকচক্ষুর আড়ালে তিনি ফুটবল কসরত নিয়ে লেগে পড়েন। ঘরের দরজা বন্ধ করেই নিয়মিত চালিয়ে যান তার অধ্যবসায়। এভাবেই তার প্রথম সাফল্যটি আসে।

এ সাফল্যে নানা কাজী রোস্তম আলি এবং নানি হালিমা বেগম অনুপ্রেরণা জুগিয়েছেন বলে জানান ফয়সাল। তিনি বলেন, আমার আগে মাগুরার আবদুল হালিম ফুটবল নৈপুণ্যের কারণে তিনবার গিনেস বুক অব ওয়ার্ল্ড রেকর্ড করেছেন। দীর্ঘদিন ধরেই সেটি টিকে আছে। আমি আরও কিছু বিশেষ রেকর্ড করতে চাই, যার মাধ্যমে নিজের জেলা ছাড়িয়ে সারা দেশকে পরিচিত করে তুলতে পারি। মাগুরা পলিটেকনিক ইনস্টিউটিটের ছাত্র ফয়সাল মাগুরার সদর উপজেলার হাজীপুর গ্রামের অবসরপ্রাপ্ত সেনাসদস্য সোহেল রানার ছেলে। মা মঞ্জুয়ারা খানম।

সূত্রঃ যুগান্তর

Leave a Reply

Your email address will not be published.