গ্রিন ইউনিভার্সিটিতে ‘ডিজিটাল যুগে লিডারশিপ’ শীর্ষক ওয়েবিনার

শিক্ষার প্রয়োজনীয়তা অপরিসীম; কিন্তু প্রতিযোগিতায় টিকে থাকতে হলে শিক্ষার পাশাপাশি নেতৃত্বদানের যোগ্যতা ও মানসম্মত ব্যবস্থাপনার জ্ঞানও জরুরি। মূলত সে লক্ষ্যেই ‘লিডারশিপ ইন দ্যা ডিজিটাল এজ’ শীর্ষক এক ওয়েবিনারের আয়োজন করেছে গ্রিন ইউনিভার্সিটি অব বাংলাদেশ। মঙ্গলবার টেলিকম অপারেটর রবির সহযোগিতায় বিশ্ববিদ্যালয়ের সেন্টার ফর ক্যারিয়ার ডেভেলপমেনট-সিসিডি এই অনুষ্ঠানের আয়োজন করে।

গ্রিন ইউনিভার্সিটির উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. গোলাম সামদানী ফকির এবং উপ-উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আব্দুর রাজ্জাক এতে প্রধান ও বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন। মূল বক্তব্য উপস্থাপন করেন রবি আজিয়াটা লিমিটেডের সিইও মাহতাব উদ্দিন আহমেদ।

অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথির বক্তব্যে অধ্যাপক মো. গোলাম সামদানী ফকির বলেন, একজন শিক্ষককে শুধু শিক্ষাদান ও গবেষণায় পারদর্শী হলেই চলবে না, পাশাপাশি তাকে ভালো লিডারও হতে হবে। তিনি বলেন, একবিংশ শতব্দীতে লিডারশিপের ধরন পরিবর্তন হয়েছে। এখন যেকোনো প্রতিষ্ঠানের জন্য অংশগ্রহণমূলক লিডারশিপই বেশি জরুরি। যদি এর সঙ্গে নিজেদের খাপ খাইয়ে নেয়া না যায়, তবে শিক্ষাসহ সবক্ষেত্রে গুণগত মান বৃদ্ধি করা চ্যালেঞ্জ হয়ে দাঁড়াবে।

মূল প্রবন্ধে রবি’র সিইও মাহাতব উদ্দিন আহমেদ বলেন, এর আগে গোটা বিশ্বে যতগুলো সংকট দেখা গেছে, তার সবগুলোই ছিল অর্থনৈতিক। কিন্তু করোনা স্বাস্থ্যগত সংকট। স্বভাবতই আমাদেরকে নতুন নতুন সমস্যা মোকাবেলা করতে হচ্ছে। তিনি বলেন, মানুষের স্বাভাবজাত প্রবৃত্তি হলো নানা ধরনের সুযোগ-সুবিধা আদায়ে কথা বলা, আন্দোলন করা। কিন্তু যে কোনো সংকটে লিডারের নির্দেশনাই তাদের কাছে বড় দাঁড়ায়। সুতরাং মানবজীবনে লিডারের গুরুত্ব অনেক। এ সময় তিনি ডিজিটাল যুগের লিডারশিপের ধরন নিয়ে দীর্ঘ আলোচনা করেন।

বিজনেস স্টাডিজের ডিন অধ্যাপক ড. গোলাম আহমেদ ফারুকী বলেন, নেতৃত্বের প্রতিভা সবার মধ্যেই থাকে। সে নেতৃত্ব কীভাবে প্রতিষ্ঠানের কাজে লাগানো যায়- ওয়েবিনারে মাধ্যমে সেটা আলোচনা হয়েছে। এ সময় তিনি ডিজিটাল যুগের সঙ্গে সঙ্গতি রেখে লিডারশিপ কোয়ালিটি বাড়ানোর ওপর গুরুত্বারোপ করেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published.